প্লাস্টিকের বদলে বাঁশের পানির বোতল!

প্লাস্টিকের ব্যবহার ব’ন্ধ ক’রতে বাঁশের তৈরি এক ধ’রনের অ’ভিনব পানির বোতল উদ্ভাবন করেছে ভা’রতের সিকিম রাজ্যের শহর ল্যাচেন।

প্লাস্টিকের প্রক্রিয়াজাত পানির বোতলের ব্যবহার রো’ধে এবং এধ’রনের পানির বোতলের বিকল্প হিসেবে অ’ভিনব বোতলটি উদ্ভাবন করা হয়েছে বলে এক প্র’তিবেদনে জা’নিয়েছে ভা’রতীয় সংবাদ মাধ্যম ইন্ডিয়া টাইমস।

ইন্ডিয়া টাইমসের ওই প্র’তিবেদনে বলা হয়েছে, প্রতিবছর কয়েক লাখ ভ্রমণপিপাসু ভা’রতের অনন্য সুন্দর এই শহরটির মনোরম প্রাকৃতিক সৌন্দর্য উপভো’গ ক’রতে আসেন। এদেরমধ্যে অনেককেই যত্রতত্র পানির বোতল ফে’লে দিতে দেখা যায়। এই প’রিস্থিতি মা’থায় রেখেই আসাম থেকে বাঁশের বোতল তৈরির নির্দে’শ দেন সিকিমের মন্ত্রী হিসনে লাছুংপা।

এর আগে ১৯৯৮ সালে প্রথমবারের মতো প্লাস্টিকের পানির বোতল নিষি’দ্ধ ক’রতে পদক্ষে’প নেয় সিকিম। এরপর ২০১৬ সালে রাজ্যটির সরকারি অফিসগুলোতে প্লাস্টিকের বোতল ব্যবহারে নি’ষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়।

এদিকে প্লাস্টিকের বোতলের ব্যবহার ঠে’কাতে ল্যাচেনে বেড়াতে আসা দ’র্শনার্থীদের গাড়ি আ’ট’কিয়ে বেশ কয়েকবার তল্লা’শিও করা হয় বলেও ওই প্র’তিবেদনটিতে বলা হয়েছে।

প্র’তিবেদন অনুযায়ী, প্রাথমিকভাবে এক হাজার বাঁশের বোতল বানানোর নির্দে’শ দেওয়া হয়। পরবর্তীতে আরও বাড়ানো হবে বোতলের সংখ্যা। এরপর বিস্কুটের প্যাকেটও নিষি’দ্ধ করার প’রিকল্পনা রয়েছে।

বাঁশের এ পানির বোতল স’ম্পূর্ণ লিক-প্রুফ ও স্বা’স্থ্যকর। বাঁশের স’ঙ্গে স্টিল, গ্লাস ও তামা’র আস্তরণ দিয়ে তৈরি হয়েছে বোতলটি। এর ফলে জী’বাণু বৃ’দ্ধি, গন্ধ ও ফুটো হয়ে যাওয়া-কোনোটাই হওয়া সম্ভব নয়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*